সাংসদ আনোয়ার খানকে নিয়ে কিছু মানুষের না জেনে সমালোচনা দুঃখজনক: সৌদি বিল্লাল - amarkhobor24.com

শিরোনাম

Home Top Ad


Saturday, June 13, 2020

সাংসদ আনোয়ার খানকে নিয়ে কিছু মানুষের না জেনে সমালোচনা দুঃখজনক: সৌদি বিল্লাল

স্টাফ রিপোর্টারঃ দাঁত থাকতে আমরা দাঁতের মর্যাদা দিতে পারি না। চলে গেলে বুঝি- তিনি কেমন ছিলেন। এমন কথাগুলোর বাস্তবতা আমরা রামগঞ্জবাসী হয় বুঝি না, না হয় বুঝতে চাই না। লক্ষ্মীপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য ও আনোয়ার খান মডার্ন হাসপাতালের চেয়ারম্যান ড. আনোয়ার হোসেন খান সম্পর্কে সম্প্রতি হাসপাতাল চিকিৎসাসেবা কেন্দ্রীক না বুঝে না জেনে রামগঞ্জের কিছু মানুষের সমালোচনায় ক্ষুব্ধ হয়ো কথাগুলো বলেন রামগঞ্জ উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক কমিটির অন্যতম সদস্য বিল্লাল হোসেন প্রকাশ সৌদি বিল্লাল।
তিনি বলেন, ডঃ আনোয়ার খান শুধু একজন এমপি নন তিনি রামগঞ্জের সাড়ে চার লক্ষ মানুষের আস্থার শেষ ঠিকানা। রামগঞ্জ উপজেলায় অবকাঠামোগত উন্নয়ন, রাজনীতির গুনগত পরিবর্তন এবং অর্থনৈতিক সমৃদ্ধি অর্জনে যিনি কাজ করে যাচ্ছেন, তিনি হলেন আমাদের সবার প্রিয় ডঃ আনোয়ার খান এমপি মহোদয়। সারা পৃথিবী যখন করোনা ভাইরাসের কারণে অর্থনৈতিক ও সামাজিকভাবে আক্রান্ত এবং এই করোনাভাইরাস সারা পৃথিবীর এক দেশ থেকে অন্য দেশকে আলাদা করে দিয়েছে। যেখানে মনুষ্যত্ব হারিয়ে গেছে। সন্তান বাবা-মার কাছ থেকে দূরে চলে যাচ্ছে,স্বামী-স্ত্রীর থেকে দূরে সরে যাচ্ছে তখনি ডঃ আনোয়ার হোসেন খান নিজের অর্থ,মেধা ও শ্রম দিয়ে ১৯ দিনে দুইশত শয্যার আধুনিক সকল সুযোগ সুবিধা সম্পন্ন করোনা চিকিৎসার জন্য কোভিড হাসপাতাল তৈরি করলেন। সেখানে আমাদের দেশের তথা রামগঞ্জের কিছু কুচক্রী মহল একজন সৎ আদর্শবান নেতার সম্পর্কে অযাচিত মন্তব্য করেন। অযাচিত মন্তব্যকারীদের শিক্ষাগত যোগ্যতাসহ তাদের মনুষ্যত্ব নিয়ে আমাদের প্রশ্ন জাগে। না জেনে না বুঝে না শুনে কোন সম্মানিত ব্যক্তি সম্পর্কে মন্তব্য করা কতটুকু যুক্তিসঙ্গত? তা আমাদের জানা নেই। এ ধরনের অপপ্রচার এবং মিথ্যাচার যারা করেছেন,তাদের উদ্দেশ্যে বলতে চাই-আপনারা নিজে তো কিছু করবেন না, অন্যদেরকেও কিছু করতে উৎসাহও দিবেন না। এ ধরনের অপপ্রচারকারীরা দেশের শত্রু জাতির শত্রু আমরা তাদেরকে ঘৃণা জানাই, ধিক্কার জানাই এবং এর তীব্র প্রতিবাদ জানাই। যারা এই ধরনের অপপ্রচারের সাথে জড়িত আছেন,তাদেরকে আইনের আওতায় নেওয়ার জন্য রামগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ আনোয়ার হোসেন ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সকলের কাছে আবেদন জানাচ্ছি- আপনারা এদেরকে আইনের আওতায় এনে শাস্তির ব্যবস্থা করলে কেউ ভবিষ্যতে রামগঞ্জের কোন সন্মানিত লোককে নিয়ে অপপ্রচার করার সাহস পাবে না। কেননা সকল সন্মানিত লোকই রামগঞ্জের সম্পদ। সাথে সাথে আমি ড. আনোয়ার হোসেন খানের সুস্বাস্থ্য কামনা করছি,যাতে মানুষের সেবায় আরো মনোনিবেশ করতে পারেন।
– বিল্লাল হোসেন (সৌদি বিল্লাল)।একজন যুবলীগ নেতা,প্রবাসী,সমাজসেবক ও শিক্ষানুরাগী।

No comments:

Post a Comment

Pages