মধুপুরে মাদকের ভয়াবহ ছোবল থেকে এলাকা সুরক্ষায় প্রেস ব্রিফিং ও আলোচনা - amarkhobor24.com

শিরোনাম

Home Top Ad


Thursday, June 11, 2020

মধুপুরে মাদকের ভয়াবহ ছোবল থেকে এলাকা সুরক্ষায় প্রেস ব্রিফিং ও আলোচনা

মো: আ: হামিদ মধুপুর টাঙ্গাইল প্রতিনিধিঃ

টাঙ্গাইলের মধুপুরে মাদকের ভয়াবহ ছোবল থেকে এলাকা সুরক্ষায় প্রেস ব্রিফিং ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত।
মহামারি করোনা ভাইরাসের মরণ ছোবলে দেশের মানুষ আজ দিশেহারা তখনই এই দূর্বলতাকে কাজে লাগিয়ে কিছু মাদক ব্যবসায়ী বাড়ি গাড়ী করে মাদকের স্বর্গরাজ্যে মুকুটহীন সম্রাট সেজে মাদক রাজ্য পরিচালনা করে যাচ্ছে। এমনই একটি মাদক সম্রাট টাঙ্গাইলের মধুপুর পৌরসভার শেওড়াতলার বাসিন্দা মৃত নাজিমুদ্দিনের ছেলে মোঃশফিকুল ইসলাম। মুলত নাজিমুদ্দিন টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার বল্লা গ্রামের আদি বাসিন্দা। কালিহাতীর বল্লাতে বিভিন্ন মাদকদ্রব্য বিক্রি করে উর্তী বয়সের ছেলেদের বিপথগামী করে ফেলে এবং মাদকাসক্ত তরুণেরা ইফটিজিং, ছিনতাই সহ বিভিন্ন অপরাধে জড়িয়ে পড়ে যার ফলে এলাকাবাসী তাদেরকে স্বপরিবারে এলাকা থেকে বিতারিত করে। পরবর্তীতে মধুপুরকে মাদকের নিরাপদ ঘাটি হিসেবে বেছে নিয়ে সামান্য জমির উপর জুফড়ীঘর তুলে তার ছেলেদেরকে নিয়ে মাদক বিক্রি শুরু করেন। মধুপুরের থানা পুলিশ থেকে শুরু করে সর্বসাধারণের কাছে আলোচিত বনে গেছে এই মাদক সম্রাট শফিক বাবলু গং। ইয়াবা ও হিরোইন সহ বেশ কয়েকবার হাতেনাতে ডিবি পুলিশের হাতে ধরা পড়ে। বর্তমানে শফিকুল বিপুল পরিমাণ হিরোইন সহ টাঙ্গাইলের ডিবি পুলিশের হাতে ধরা পড়ে এবং তার বড় ভাই বাবলু বিপুল পরিমাণ ইয়াবাসহ ধরা পড়ে বর্তমানে রৌমারী জেলহাজতে আছে। এলাকাবাসীর অভিযোগ এই মাদক ব্যবসায়ীদের কারণে এলাকার যুবসমাজ আজ বিভিন্ন অপরাধের সাথে সম্পৃক্ত হচ্ছে। বহিরাগতদের কাছে মাদক বিক্রির সময় এলাকার কিছু যুবক বাঁধা দিলে দু'পক্ষের মধ্যে হাতাহাতি হয় এবং সেই জেরে মাদক ব্যবসায়ী শফিক মাদক বিরোধী যুবকদের নামে মধুপুর থানায় মিথ্যা মামলা করে। প্রেস ব্রিফিং এর মাধ্যমে মধুপুর পৌরসভার মেয়র জনাব মাসুদ পারভেজ, অত্র ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ও এলাকাবাসীর সমন্বয়ে সাংবাদিকদের মাধ্যমে টাঙ্গাইল জেলা প্রশাসকের নিকট এই মাদক সম্রাটদের বিরুদ্ধে কঠিন থেকে কঠিনতর শাস্তির দাবি জানান। এসময় উপস্থিত ছিলেন প্রেস ক্লাব মধুপুর এর সভাপতি মোঃ আঃ হামিদ, সাধারণ সম্পাদক মোঃ বাবুল রানা সহ বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকগন।

No comments:

Post a Comment

Pages