রামগঞ্জ দারুলউলুম হাকিমীয়া মাদ্রাসাকে আর্থিক অনুদান ও পরিদর্শন করেন এসপি হুমায়ুন কবির - amarkhobor24.com

শিরোনাম

Home Top Ad


Friday, February 21, 2020

রামগঞ্জ দারুলউলুম হাকিমীয়া মাদ্রাসাকে আর্থিক অনুদান ও পরিদর্শন করেন এসপি হুমায়ুন কবির

লক্ষ্মীপুরের অন্যতম ব্যস্ত শহর রামগঞ্জ।আর সেই রামগঞ্জের থেকে প্রায় দুই কিলোমিটার দুরে পশ্চিম আলিপুর ক্বারী সাহেবের বাড়িতে অবস্থিত ""দারুল উলুম হাকীমিয়া মাদ্রাসা"" যেটি স্থাপিত হয়েছে ১৯৬০ সনে।যার প্রতিষ্ঠাতা মরহুম ক্বারী আব্দুল হাকীম(রহ.)।উজানীর মরহুম ক্বারী ইব্রাহীম (রহ.) এর একজন সুযোগ্য শাগরেদ ছিলেন উনি।।

আজ শুক্রবার দিবাগত সন্ধ্যায় উক্ত মাদ্রাসায় ছাত্র-শিক্ষকরা যার যার কাজে ব্যস্ত ছিলেন।হঠাৎ করে একটি প্রাইভেটকারের আগমন।দরজা খুলেই নেমে এলেন মোঃ হুমায়ুন কবির(স্পেশাল সুপারিন্টেন্ডেন্ট অব পুলিশ এসপি)।যিনি বর্তমানে ক্রিমিনাল ইনভেস্টিগেশন ডিপার্টমেন্ট (CID) বাংলাদেশ পুলিশ ঢাকাতে নিযুক্ত।

তিনি সরাসরি মাদ্রাসায় আসেন মাদ্রাসা পরিদর্শন করতে।মাদ্রাসার পরিচালক ও মুহতামীম আব্দুল্লাহ আল মামুন সাহেব এর আতিথিয়তায় বরণ করে নেয়া হয় তাকে।এসময় এসপি হুমায়ুন কবির সাহেব পুরো মাদ্রাসার সবগুলো কক্ষ পরিদর্শন করেন।হেফজ বিভাগ,কিতাব বিভাগ,নাজেরা বিভাগসহ নির্মানাধীন দ্বিতীয় তলার কাজ দেখেন উনি।

এরপর উনি মাদ্রাসার মুহতামীম আব্দুল্লাহ আল মামুন সাহেবের হাতে মাদ্রাসার এতিম ও দুস্থ এবং অসহায় ছাত্রদের জন্য নিজেই অর্ডার দিয়ে ঢাকা থেকে পোশাক এনে এবং নগদ কিছু অর্থ তুলে দেন মাদ্রাসার অফিস কক্ষে।এসময় তিনি মাদ্রাসার সমস্ত নিয়ম-নীতিমালা খুব মনোযোগ সহকারে শুনেন এবং মাদ্রাসার সকল কার্যকলাপকে প্রশংসায় ভাসিয়েছেন।

তিনি আরো বলেন যে,
একজন হাফেজ যিনি ৩০ পারা কুরআন মুখস্থ করেন এদের চেয়ে উপযুক্ত মানুষ আর কেউ নয়।এরাই আল্লাহর নেয়ামত।এদের হাত ধরে আগামীতে হাজার হাজার সন্তান ইসলাম ও কুরআনের শিক্ষায় শিক্ষিত হবে।সবশেষে মাদ্রাসার অসম্পূর্ণ কাজের জন্যে উনি উনার পক্ষ থেকে যতটুকু সম্ভব সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছেন।মাদ্রাসার সব ছাত্রদেরকে বিভিন্ন পরামর্শ দেন তাদের পড়াশুনার অগ্রগতির জন্যে।

তিনি আরো বলেন যে,
কাওমী শিক্ষার ব্যাপকতা বৃদ্ধির কারনে আজ দেশের মানুষ কুরআনের সুশিক্ষায় শিক্ষা নেবার সুযোগ পাচ্ছে।তিনি হাটহাজারী মাদ্রাসা,চরমোনাইয়ের মাদ্রাসার কার্যক্রমের প্রশংসা করেন।অবশেষে মাদ্রাসার মেহমানদারীর পর তিনি আগামীতে আবার মাদ্রাসায় আসার ওয়াদা করে যান।এবং শিক্ষকদের উদ্দেশ্য করে বলে যান যে,মাদ্রাসার শিক্ষার্থীদেরকে বুঝিয়ে শুনিয়ে আদরের সহিত শিক্ষা দেবার অনুরোধ করেন।

এসময় মাদ্রাসায় আরো উপস্থিত থাকেন ওই মাদ্রাসার কিছু অংশ জমি দানকারী লুৎফর রহমানের মেঝো ছেলে বাচ্চু মিয়া যিনি এসপি হুমায়ুন কবির সাহেবের ক্লাসমেট।আরো ছিলেন ওই মাদ্রাসার অনেক শুভাকাংখীরা।

No comments:

Post a Comment

Pages