ধনবাড়ীর গাড়াখালীতে অবৈধভাবে মাদরাসা প্রতিষ্ঠা করার অভিযোগ উঠেছে- - amarkhobor24.com

শিরোনাম

Home Top Ad


Monday, November 25, 2019

ধনবাড়ীর গাড়াখালীতে অবৈধভাবে মাদরাসা প্রতিষ্ঠা করার অভিযোগ উঠেছে-


টাঙ্গাইল জেলা প্রতিনিধি:

টাঙ্গাইল জেলার ধনবাড়ী উপজেলার গাড়াখালীতে অবৈধভাবে মাদরাসা প্রতিষ্ঠার অপচেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। উপজেলার পাইস্কা ইউনিয়নের অন্তর্গত গাড়াখালী মৌজায় অবস্থিত গাড়াখালী মসজিদ সংলগ্ন স্বতন্র  ইবতেদায়ী মাদরাসা নামে একটি মাদরাসা প্রতিষ্ঠা করার অপচেষ্ঠা চালিয়ে যাচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে।  উক্ত মাদরাসার ঘর, দরজা এমনকি সাইনবোর্ড পর্যন্তও নাই বলেও জানা যায়।এমনকি কোন ছাত্র-ছাত্রীও নাই। তদন্তে দেখা যায়, এই নামে কোন মাদরাসার অস্তিত্ব নাই। একটি সুযোগ সন্ধানী মহল সুকৌশলে মাদরাসা প্রতিষ্ঠায় লিপ্ত আছে বলে অভিযোগ উঠেছে। ১৯৮১সাল হতে  প্রতিষ্ঠিত গাড়াখালী বালিকা দাখিল মাদরাসাটি (ইবতেদায়ী সংলগ্ন)। যে প্রতিষ্ঠানে ১৯৮১ সাল হতেই ইবতেদায়ী সহ দাখিল পর্যন্ত শিক্ষা কার্যক্রম চলমান রয়েছে। সেই প্রতিষ্ঠানে জোরপূর্বক ভাবে জায়গায় অবকাঠামো বিহীন গাড়াখালী মসজিদ সংলগ্ন  স্বতন্র ইবতেদায়ী মাদরাসা অবস্থান নেওয়ার জন্য ষড়যন্ত্রে লিপ্ত একটি স্বার্থবাদী মহল। উল্লেখ্য যে, ১৯৮১সালে প্রতিষ্ঠিত গাড়াখালী বালিকা দাখিল (সংলগ্ন ইবতেদায়ী) মাদরাসাটিতে ২০০৪ সালে দাখিল খুলে ০১/০১/২০০৬ সালে অনুমোদন লাভ করে। ২০০৮ সাল হতে দাখিল এবং ২০০৯ সাল হতে ইবতেদায়ী সমাপনী পরীক্ষায় ২০১৮ সাল পর্যন্ত অংশগ্রহণ করেছে। গাড়াখালী বালিকা দাখিল মাদরাসা (ইবতেদায়ী সংলগ্ন) এর ভারপ্রাপ্ত সুপার মোখলেছুর রহমান বলেন, গত বছর গাড়াখালী মসজিদ সংলগ্ন  স্বতন্র ইবতেদায়ী মাদরাসার নামে ১০ জন ভুয়া শিক্ষার্থী দেখিয়ে ডি আর জমা দিয়েছিল। কিন্তু একজনও পরীক্ষায় অংশ গ্রহণ করে নাই। ২০১৯ সালে আবারও ১৫ জন শিক্ষার্থী দেখিয়ে ডি আর জমা দিয়েছে বলে জানা যায়। যা সঠিক তদন্তে বেড়িয়ে আসবে। গাড়াখালী মৌজার ৭৫ শতাংশ ভূমির মধ্যে গাড়াখালী বালিকা দাখিল মাদরাসাটি প্রতিষ্ঠিত। গোপন সূত্রে জানা যায়, প্রতিষ্ঠিতা মাও. মো: হাফিজুর রহমান গাড়াখালী বালিকা দাখিল মাদরাসার ৭৫ শতাংশ জমি হইতে ৩৫ শতাংশ জমি গাড়াখালী মসজিদ সংলগ্ন স্বতন্ত্র ইবতেদায়ী মাদরাসাকে হস্তান্তর করেছেন। উক্ত মাদরাসাটি বন্ধের জন্য এবং সঠিক তদন্ত পূর্বক ব্যাবস্হা নেওয়ার জন্য ধনবাড়ী উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন বলে জানান গাড়াখালী বালিকা দাখিল মাদ্রাসার ভারপ্রাপ্ত সুপার মো: মোখলেছুর রহমান ও এলাকাবাসী। তিনি আরও জানান লিস্টে উল্লেখিত কোন পরিক্ষার্থী পরিক্ষায় অংশ গ্রহন করে নাই। যা সঠিক তদন্তে বেড়িয়ে আসবে। কুচক্রী মহল এ ভাবেই তাড়া ভূয়া পরীক্ষার্থী দেখিয়ে অবৈধ ভাবে মাদরাসা প্রতিষ্ঠা করার পায়তারা করতেছেন বলেও জানান তিনি। এ বিষয়ে মো: মোখলেছুর রহমান ও এলাকাবাসী উর্ধতন  কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি সহ আইনগত হস্তক্ষেপ কামনা করেন।
মো: আ: হামিদ
টাঙ্গাইল জেলা প্রতিনিধি
০১৭১৮১৮৭৫০৮

No comments:

Post a Comment

Pages